একটা আজগুবি কক্ষপথে~



মুঠোয় যতগুলো আলগা 

তার থেকেও 


ওজনের দাঁড়িপাল্লা = তার এই নিঃসঙ্গ যাপনে 

গুটিকয়েক গিটারের তান 


প্রিজমের দিকে তাক করা বন্দুকের-মাছি


কিছু ফড়িং ও প্রজাপতির ঋতুকাল


তবলার কালো ছই অমাবস্যা 


এবং সব সম্বাবনাগুলোয় পলেস্তারা







একটি কল্পিত সকালে

লালের আভাস


কপালে ঠোঁট


চুম্বকটিও টুকরো লোহাকে তাড়ায়


বাধ্য এক জড়বৎ তড়িতোনুন অন্তর্মুখী 


চাপা আর্তনাদকে জাগায়








ইতিহাসের পুকুরে হাঁসেদের 

রমণ প্রণালি একদা মূর্ধায় 


অনেক উসখুসে তীব্র পাহাড়

টেবিলে রাখা মেরুদণ্ডের পেপারওয়েট 


পাথরের যৌনাঙ্গ 

গলা অবদি নোনতা-জল 

ভবের শহরে নিয়ম-মাফিক ইশারা


কিনতে কিনতে থলেও গর্ভবতী 







কাপভর্তি ÷ অগণন শূন্যতা = নগ্ন আঁধারে

দুলছে একটা ছায়ার পোশাক 


শরীর বিয়োজিত কিছু অক্ষরের কঙ্কাল কুম্ভকর্ণ 


বালিশের পাশেই সোনা ও রূপোর দুটি লেডিফিঙ্গার 








অহেতুক সত্যি না বলে বরং 

মিথ ভেঙে মোহহীন ফুলে 

মাছি নয় —মৌমাছি 

তবে কি মধুর সত্যতায় তাপ্পিমারা

অলংকারের আনন্দ ~


কথাগুলো ব্রা ও প্যান্টি পড়লেই 

কুকুর সতেজ...








ছেঁড়াফাটা 

যে পাথরটি রাস্তায় হোঁচট খাচ্ছে 

চিনছে কি চশমা!


ভোঁ-লাগা অবাক শহর

কে কার! বলতে পারে না— 


—অর্ডার অর্ডার। মুখ খুললেই 

পিছনে সূর্য উঠবে হতভাগা


এতসব শোনার পরও 

রাস্তা কি পাথরটিকে অস্বীকার করবে!!!...







Post a Comment

নবীনতর পূর্বতন